বিজয়ের কবিতাঃ তিরিশ লক্ষ হাসি

0
83

পতাকাটা আমাদের রঞ্জিত হোলো যে পবিত্র  রঙে, আমরা দিয়াছি কি সেই  রক্তের ঠিক দাম?

শহীদের রক্তে উন্মাদ ড্রাকুলারা গৌরবে এভূমে ঘোরে!

আমরা কি তখন হায়নাদের বিচার করেছিলাম ?

অনাগত প্রজন্মকে আমি উত্তর দিয়ে গেলাম..

হ্যাঁ হ্যাঁ হ্যাঁ আমরা পেরেছি; আমরা বিচার করেছি

.

বীরাঙ্গনা নারী  নিষ্পলক তাকিয়ে গোধুলী পানে;

তাঁর চোখের  কোনে জল উন্নিশ্বো একাত্তর স্মরণে

আহারে সে বিভৎসতা, কি ভয়ানক সে বিভীষিকা!

এই বাংলাদেশকে জন্মদিতে সে নারী ভুক্তভোগী

হানাদার হায়েনা-দোসরের কি ভয়ানক সে ছোবল!

 

হঠাৎ অগোচরে আঁধফোঁটা শুকনো জল গড়িয়ে পড়ে!

একাত্তরে মত আজও সন্ধ্যা নামে- আজ স্বাধীন সন্ধ্যা।

 

বীরাঙ্গনা হারিয়েছে যা একাত্তরে; আমরা তা ফিরিয়ে দিতে পারিনি তাঁকে

মেঘ সরিয়ে দিয়েছি তাঁর মুখে হাসি,

আমরা স্বাধীন বাংলায় সে কলঙ্কের কবর দিয়েছি।

শোনো, এ প্রজন্ম দিয়েছে রাজাকার যুদ্ধাপরাধীর ফাঁসি।

দ্যাখো; দেখতে পাচ্ছো তিরিশ লক্ষ হাসি।

.

মুক্তিযুদ্ধ- কামান- গেরিলা- হানাদার..ঘুম বিভ্রাট অস্বস্তি

বৃদ্ধের চোখে-মনে  এক রত্তি স্বস্তির ঘুম নেই.. স্মৃতিময়  দুঃস্বপ্ন।

পাক বাহিনীর ক্যাম্প আক্রমণ গভীর রাতে, মিশনের অপেক্ষা,উৎকন্ঠা,

নির্ঘুম চোখে ভাসছে চঞ্চলা নারী-কতো প্রেমময় তার চোখ!

প্রেমের স্মৃতিচারণ, বিষণ্ণ মনে উদাস ভাবনা,

আক্রমণ মুহুর্তে শহীদ হলে দ্যাখা হবেনা আর।

ঘোর বিষণ্নতা, ভীষণ ম্লানতার ভ্রম.. উদাসীনতা।

 

গ্রেনেড গুলির অওয়াজে হুস ফিরে পায়,

এক মূহুর্তেই সে জওয়ান সব ভূলে যায়।

তার চেতনয় পরিস্ফুটিত হয় ‘বাংলাদেশ স্বাধীন করো’

অগোচরে বুকের মধ্যে উচ্চারিত ‘বীর বাঙালী অস্ত্র ধরো’

যুদ্ধ

অতঃপর

বাংলাদেশ স্বাধীন হয়, তবু বীরের চোখে প্রশান্তির ঘুম আসে না!

দোসর যায় ক্ষমতায়, এ রাষ্ট্রে ওদের বিচার হয়না দীর্ঘকাল।

শহীদ রক্তে রঞ্জিত পতাকা, হাতে নিয়ে শুয়োরেরা করে উন্মাদনা!

 

প্রজন্ম অরাজকতা মেনে নেয়নি, শুনুন

পবিত্র ঝান্ডা হায়নার হাতে শোভিত হতে দেয়নি।

দিয়েছি ফিরিয়ে  শহীদের যথাযথ সম্মানী,

এই স্বাধীন বাংলার মাটিতে ঘৃণিত হায়েনার ফাঁসি

আমরা দিয়েছি চেয়েছি মুক্তিযোদ্ধার মুখে হাসি।

.

হঠাৎ কোরে এক মুহূর্তেই পুরো বাংলাদেশ থমকে গেছে,

একটা মিছিল আসছে ধেয়ে স্বাধীন দেশের উদ্দেশ্যে।

তিরিশ লক্ষ শহীদ ফিরে আসছে- আপন ভূমিতে

দ্যাখো একটা অলৌকিক  স্রোত; নৈসর্গিক দৃশ্য তাদের এ মিছিল

আলোর জ্যোতিতে একটা কালো রাত মুছে গ্যাছে,

তিরিশ লক্ষ মুখে বিজয়ী হাসি আর বুকে প্রশান্তি মিলেছে।

 

দীর্ঘ কালো রাতের শেষে ভীষন বিজয় আলোর সকাল,

তিরিশ লক্ষ্য হাসির ঝলকে বাংলাদেশের সূর্য চির উজ্জ্বল।

 

তিরিশ লক্ষ হাসি ॥ সাদা কাঁক(মেহেদী হাসান)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here